শুক্রবার ১৭ই জানুয়ারি, ২০২০ ইং ৪ঠা মাঘ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

Ad

সর্বশেষঃ

গাজীপুরে গণধর্ষণকারীর মূলহোতা হৃদয় হোসেন গ্রেফতার…

আপডেটঃ ৩:১৫ পূর্বাহ্ণ | জুলাই ১৬, ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক : গাজীপুর : র‌্যাব-১ গাজীপুরের নগপাড়া এলাকা হতে চাঞ্চল্য সৃষ্টিকারী গণধর্ষণকারী মূলহোতা মোঃ হৃদয় হোসেন(২২)কে গ্রেফতার করেছে।
গত ০৩জুলাই/১৯ গাজীপুর জেলার নগপাড়া এলাকায় ভিকটিম(১৪)কে তার ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোরপূর্বক ০৪/০৫ জন ধর্ষণকারী গণধর্ষণ করে এবং ধর্ষণের ভিডিও ও ছবি ধারন করে ভিকটিমের পরিবারসহ তার নিকটতম স্বজনদের কাছে প্রেরণ করে। উক্ত গণধর্ষণ ঘটনা নগপাড়া এলাকায় চাঞ্চল্য সৃষ্টি করেছিল এবং ব্যাপক ভাবে মিডিয়ায় প্রচার হয়েছিল। উক্ত বিষয়ে ভিকটিম তার পরিবারের অন্যদের কাছে প্রকাশ করতে গেলে ধর্ষণকারীরা তাকে বিভিন্ন ভাবে ভয়-ভিতি প্রদর্শন করে এবং তার জীবন নাশের হুমকি দিয়ে আসছিল। পরবর্তীতে উক্ত বিষয়ে আইনগত সাহায্য কামনা করে ভিকটিম এর পরিবার র‌্যাব-১, স্পেশালাইজড্ কোম্পানীর কোম্পানী কমান্ডার বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করে, যার নম্বর-২৫ তারিখ ১৩/০৭/১৯ খ্রিঃ। উক্ত অভিযোগ পাওয়ার পর র‌্যাব-১ এর পোড়াবাড়ী ক্যাম্পের কোম্পানী কমান্ডার লেঃ কমান্ডার আব্দুল্লাহ আল-মামুন উক্ত ধর্ষণকারীদেরকে গ্রেফতারের লক্ষ্যে সোর্স নিয়োগসহ র‌্যাবের সকল ধরনের গোয়েন্দা কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছিল।


এরই ধারাবাহিকতায় গতকাল ১৪ জুলাই ২০১৯ তারিখ বিকেলে র‌্যাব-১, স্পেশালাইজড্ কোম্পানী পোড়াবাড়ী ক্যাম্প, গাজীপুরের একটি আভিযানিক দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারেন যে, উক্ত গণধর্ষণকারী মূলহোতা মোঃ হৃদয় হোসেন(২২) গাজীপুরের বারবৈকা এলাকায় অবস্থান করিতেছে। উক্ত সংবাদের ভিত্তিতে অত্র কোম্পানীর কোম্পানী কমান্ডার আব্দুল্লাহ আল মামুন, (জি), বিএন এর নেতৃত্বে সঙ্গীয় ফোর্স সহ জিএমপি, গাজীপুর বাসন থানাধীন বারবৈকা এলকায় অভিযান পরিচালনা করে। অভিযানকালে গণধর্ষণকারী মূলহোতা আসামী ১। মোঃ হৃদয় হোসেন(২২), পিতা-মোঃ বিল্লাল হোসেন, সাং-বারবৈকা, থানা-বাসন, জিএমপি, গাজীপুর’কে গ্রেফতার করা হয়।
গ্রেফতারকৃত আসামীকে জিজ্ঞাসাবাদে জানায় যে, গত ০৩ জুলাই ১৯ সন্ধ্যা হতে রাত ১১.৪৫ টা পর্যন্ত ধৃত আসামী এবং তার সহযোগী ০৪ বন্ধু মিলে ভিকটিমকে জোরপূর্বক তুলে নিয়ে ভিকটিম(১৪)কে একটি রুমে আটক করে রেখে তার হাত, পা, মুখমন্ডল বাধিয়া তাকে পালাক্রমে গণধর্ষণ করে। গ্রেফতারকৃত আসামীকে জিজ্ঞাসাবাদে আরো জানা যায়, উক্ত আসামীর নামে গাজীপুর জেলার বিভিন্ন থানায় একাধিক ধর্ষণ মামলাসহ ডাকাতি এবং মাদক মোট ০৫ টি মামলা রয়েছে। এই মামলার অন্যান্য পলাতক আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টায় র‌্যাবের অভিযান অব্যাহত আছে। ধৃত আসামীকে থানায় হস্তান্তর ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।