বৃহস্পতিবার ১২ই ডিসেম্বর, ২০১৯ ইং ২৮শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

Ad

সর্বশেষঃ

গোপালগঞ্জে হাত-পা বেঁধে নদীতে ফেলে এক ব্যক্তিকে হত্যার অভিযোগ….

আপডেটঃ ২:৪৬ পূর্বাহ্ণ | অক্টোবর ১৭, ২০১৯

এম শিমুল খান, গোপালগঞ্জ : গোপালগঞ্জের মুকসুদপুরে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে শাহ আলম শেখ (৫৫) নামে এক ব্যক্তিকে হাত-পা বেঁধে নদীতে ফেলে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। মঙ্গলবার উপজেলার গোহালা ইউনিয়নের উত্তর গঙ্গারামপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। শাহ আলম ওই গ্রামের মৃত আব্দুল খালেক শেখের ছেলে।
পুলিশ ও পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, উপজেলার গোহালা ইউনিয়নে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে মঙ্গলবার সকালে সিন্দিয়াঘাট বাজারে সাবেক চেয়ারম্যান লিটন বয়াতির ও বর্তমান চেয়ারম্যান সফিকুল আলম মোল্লার অনুসারীদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এ সংঘর্ষে উভয় পক্ষের নারীসহ ১০জন আহত হয়। আহতদের নিকটতম মাদারীপুরের রাজৈর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।
দুপুরে দিকে শাহ আলম রাজৈর হাসপাতালে ভর্তি আহত চাচাতো বোন মিনাকে দেখে বাড়ি যাওয়ার পথে নিখোঁজ হয়। অনেক খোজা-খুঁজির পর এলাকাবাসী রাত পৌনে ৮টার দিকে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় শাহ আলমকে কুমার নদে দেখে। পরে তাকে উদ্ধার করে রাজৈর উপজেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা মৃত ঘোষণা করেন।
রাজৈর স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. প্রদীপ চন্দ্র মন্ডল জানান, হাসপাতালে আনার আগেই সে মারা গেছে।
মুকসুদপুর সিন্দিয়াঘাট পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের আইসি (পুলিশ কর্মকর্তা) আবুল বাসার ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।