মঙ্গলবার ২৪শে নভেম্বর, ২০২০ ইং ৯ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

Ad

সর্বশেষঃ

দাবি না মানলে ৭২ ঘণ্টা শেষে আবার হামলা: হামাস

আপডেটঃ ৫:৫৩ অপরাহ্ণ | আগস্ট ০৭, ২০১৪

গাজা উপত্যকা নিয়ন্ত্রণকারী ইসলামি প্রতিরোধ আন্দোলন হামাস বলেছে, তাদের দাবি মেনে নেয়া না হলে ৭২ ঘণ্টার যুদ্ধবিরতি শেষ হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে আবার রকেট হামলা শুরু করা হবে। গাজায় গত মঙ্গলবার স্থানীয় সময় সকাল ৮টা থেকে (বাংলাদেশ সময় বেলা ১১টা) ৭২ ঘন্টার যুদ্ধবিরতি শুরু হয়েছে এবং তা চলবে শুক্রবার সকাল ৮টা পর্যন্ত।
হামাসের প্রধান নেতা খালেদ মাশআল এর আগে জানিয়েছিলেন, তার সংগঠন সাময়িক যুদ্ধবিরতি মেনে নিলেও গাজার ওপর থেকে অবরোধ তুলে নেয়ার আগ পর্যন্ত স্থায়ী যুদ্ধবিরতি মানবে না।

ইসরাইলের তাবেদার মিশর সরকারের মধ্যস্থতায় বর্তমানে কায়রোতে দু’পক্ষের মধ্যে চলছে যুদ্ধবিরতির মেয়াদ বাড়ানোর আলোচনা। মিশরীয় কর্মকর্তারা আজ (বৃহস্পতিবার) জানিয়েছেন, স্থায়ী যুদ্ধবিরতির জন্য হামাস ও ইসরাইলের মধ্যে সুস্পষ্ট মতপার্থক্য রয়ে গেছে। দু’পক্ষ তাদের নিজ নিজ অবস্থানে অটল থাকলে আলোচনায় অগ্রগতি হবে না বলেও সতর্ক করে দিয়েছে কায়রো। স্থায়ী যুদ্ধবিরতির জন্য হামাসসহ গাজার অন্যান্য প্রতিরোধ সংগঠনকে নিরস্ত্র হওয়ার শর্ত দিয়েছে ইহুদিবাদীরা। কিন্তু হামাস বলেছে, অত্যাধুনিক অস্ত্রে সজ্জিত ইসরাইলের মোকাবিলায় নিরস্ত্র হওয়ার দাবি মেনে নেয়া কোনোভাবেই সম্ভব নয়। ইহুদিবাদী ইসরাইলের পাশবিক হামলার জবাব দেয়ার জন্য তারা আরো আধুনিক অস্ত্রে সজ্জিত হবে।

অন্যদিকে স্থায়ী যুদ্ধবিরতির জন্য হামাসের তিন শর্ত হচ্ছে:

# গাজার ওপর থেকে গত সাত বছরের অবরোধ পুরোপুরি প্রত্যাহার করতে হবে।

# ইসরাইলি কারাগারে আটক সব ফিলিস্তিনি বন্দিকে মুক্তি দিতে হবে।

# গাজার ওপর আগামী ১০ বছরে কোনো হামলা চালানো যাবে না।

এসব দাবি মেনে নেয়া না হলে ৭২ ঘণ্টা পর আবার হামলা শুরু করবে হামাস।