শুক্রবার ৫ই মার্চ, ২০২১ ইং ২০শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

Ad

সর্বশেষঃ

প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ…

আপডেটঃ ৩:২১ অপরাহ্ণ | জানুয়ারি ২৪, ২০২১

‘চ্যানেল নাইন’ এ ‘নাইন ইনভেস্টিগেশন’ নামক অপরাধ অনুসন্ধানী অনুষ্ঠানে ‘হাউজিং প্লট ব্যবসার আড়ালে ব্রাইট সিটির এম এল এম তৎপরতা’ শিরোনামে যে প্রতিবেদনটি প্রচারিত হয়েছে তার তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দা জানাচ্ছি………………….

‘চ্যানেল নাইন’‘নাইন ইনভেস্টিগেশন’ নামক অপরাধ অনুসন্ধানী অনুষ্ঠানে ‘হাউজিং প্লট ব্যবসার আড়ালে ব্রাইট সিটির এম এল এম তৎপরতা’ শিরোনামে যে প্রতিবেদনটি প্রচারিত হয়েছে তার তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দা জানাচ্ছি। প্রচারিত সংবাদে কোম্পানীকে জড়িয়ে যে সংবাদ প্রকাশিত হয়েছে তা সম্পূর্ণ মিথ্যা, বানোয়াট, ভিত্তিহীন ও উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। প্রচারিত প্রতিবেদনে সংবাদদাতা কোন ধরনের তথ্য-উপাত্ত বিশ্লেষণ না করে সম্পূর্ণ মনগড়া কল্পকাহিনী সাজিয়ে সংবাদটি পরিবেশন করেছেন। যার সাথে বাস্তবতার কোন সাদৃশ্য বা মিল নেই। সংবাদদাতা তার প্রতিবেদনে বন্ধ হয়ে যাওয়া কিছু কোম্পানীর সাথে আমাদের কোম্পানীর সাদৃশ্য খোঁজার চেষ্টা করেছেন, যার সাথে আমাদের কোম্পানীর কোন মিল নেই। আশুলিয়া ভূমি অফিসের একজন কর্মচারীর বক্তব্যের ভিত্তিতে ব্রাইট ফিউচার হোল্ডিং লিঃ নামে কোন জমি নেই বলে প্রতিবেদনে প্রচার করা হয়, প্রকৃত ঘটনা আমাদের কোম্পানী ইছরকান্দি মৌজায় প্রায় ১৭০ বিঘা সাফ-কবলা দলিলের মাধ্যমে ক্রয় করিয়াছে এবং এখনো কয়েক বিঘা জমি ক্রয়ের নিমিত্তে বায়নানামা সম্পাদন করিয়াছে। ক্রয়কৃত জমির নামজারির কার্যক্রমও চলমান, নামজারী প্রক্রিয়াটি একটি দীর্ঘসূত্রি প্রক্রিয়া হওয়ায় ক্রয়কৃত সমস্ত জমির নামজারি এখনো পর্যন্ত সম্পন্ন হয়নি, যা একটি স্বাভাবিক প্রক্রিয়া। আমাদের কোম্পানীটি মূলত একটি রিয়েল স্টেট কোম্পানী, যার মূখ্য কাজ প্লট এবং ফ্ল্যাট বিক্রয় করা। কিন্তু সম্পূর্ণ সংবাদজুড়ে উপস্থাপক এবং প্রতিবেদক না জেনে-বুঝে কোম্পনীকে হেয়প্রতিপন্ন করার জন্য এবং ব্যবসায়িক মর্যাদা ক্ষুণ্ণ করার জন্য কারো প্ররোচনায় বা ব্যক্তিগত স্বার্থ চারিতার্থ করার জন্য প্রতিবেদনটি উপস্থাপন করিয়েছেন। আমি এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।

মোঃ আকতার হোসেন, ব্যবস্থাপনা পরিচালক, ব্রাইট ফিউচার হোল্ডিংস লিমিটেড