| |

Ad

সর্বশেষঃ

বাংলাদেশ এনজিও ফাউন্ডেশনের সহযোগিতায় জঙ্গি,নাশকতা মাদক বিরোধী র‌্যালী ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত

আপডেটঃ ১:১২ অপরাহ্ণ | অক্টোবর ০৭, ২০১৭

শামসুল আলম স্বপন : বাংলাদেশ এনজিও ফাউন্ডেশনের সহযোগিতায় কুষ্টিয়ার সেবা ( পল্লী উন্নয়ন সংস্থা)’র উদ্যোগে জঙ্গি,নাশকতা মাদক বিরোধী সমাবেশ-র‌্যালী ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ উপলক্ষে ৬ অক্টোবর শুক্রবার সকালে কুষ্টিয়া হাউজিং এষ্টেট মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় অডিটরিয়ামে অলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। জঙ্গি ও মাদক বিরোধী এ সভায় সভাপতিত্ব করেন কুষ্টিয়া হাউজিং এষ্টেট মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো: শামছুল আলম । প্রধান অতিথি ছিলেন কুষ্টিয়া সদর উপজেলা রিসোর্স সেন্টারের ইন্সট্্রাক্টর মো: খাইরুল ইসলাম। প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন সেবা ( পল্লী উন্নয়ন সংস্থা)’র নির্বাহী পরিচালক বিশেষ অতিথি ছিলেন সেবা কমিউটার ট্রেনিং সেন্টারের প্রিন্সিপাল এস এম কে নাহার তুলি, কুষ্টিয়া হাউজিং এষ্টেট মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক মোছা: শামসুন্নাহার, মোছা: আসমা পারভীন, মোছা: মাহামুদা খাতুন, মোছা: নাজমা খাতুন, মোছা: সালমা খাতুন, মোছা : সায়মা খাতুন ও মোছা: আসমা পারভীন। আলোচনা সভায় কলেজ ও ইউনিভার্সিটির শতাধিক ছাত্র/ছাত্রী উপস্থিত ছিলেন।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে মো: খাইরুল ইসলাম বলেন,ইসলাম শুধু নয় কোন ধর্মই জঙ্গি নাশকতা ও মাদকতাকে প্রশয় দেয় না। তিনি বলেন পবিত্র গ্রন্থ কোরআন মজিদে আল্লাহ পাক ঘোষণা করেছেন কোন ব্যক্তি একজন মানুষকে হত্যা করলো মানে সে সমগ্র মানব জাতিকে হত্যা করলো। হত্যাকারীর সারা জনম জাহান্নামের আগুনে জ্বলবে। তিনি আরো বলেন, মাদক আমাদের সমাজকে ধ্বংস করছে । মাদকাসংক্ত সন্তান পরিবারের অশান্তির কারণ উল্লেখ করে তিনি বলেন মাদককে না বলতে হবে । আমরা কেও মাদক স্পর্ষ করবো না আজ এই শপথ নিতে হবে আমাদেরকে। বক্তব্য শেষে তিনি উপস্থিত সকলকে শপথ বাক্যপাঠ করান।
শপথ বাক্য: আমি মহান সৃষ্টিকর্তার নামে শপথ করছি যে,আমি কখনো মাদক গ্রহন করবো না এবং জঙ্গিবাদের সাথে জড়িত হবো না । মা-বাবাকে কখনো কষ্ট দেব না- আমীন।
সেবা ( পল্লী উন্নয়ন সংস্থা)’র নির্বাহী পরিচালক শামসুল আলম স্বপন
বাংলাদেশ এনজিও ফাউন্ডেশনের মহতী উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে বলেন, বাংলাদেশ এনজিও ফাউন্ডেশন শুধু হতদরীদ্র মানুষকে আর্থিক উন্নয়নই করছে না ওই সংস্থা মানবতার কল্যাণে নানা বিধ কাজ করে যাচ্ছে যা প্রশংসার দাবি রাখে। তিনি বলেন আজকে যে জঙ্গি,নাশকতা মাদক বিরোধী সমাবেশ অনুষ্ঠিত হচ্ছে এর পেছনে সব চেয়ে বড় অবদান বাংলাদেশ এনজিও ফাউন্ডেশনের মাননীয় চেয়ারম্যান জনাব এ,এফ,এম ইয়াহিয়া চৌধুরী মহোদয়ের। তিনি সারা বাংলাদেশে জঙ্গি ও মাদকের বিরুদ্ধে জনসচেতনতা সৃষ্টি করার জন্য বাংলাদেশ এনজিও ফাউন্ডেশনের সহযোগি সংস্থার নির্বাহী প্রধানদেরকে নির্দেশ দিয়েছেন। এছাড়া তিনি অসহায় মানুষের পাশে বন্ধুর মত দাঁড়ানোর জন্য সকলকে অনুরোধ জানিয়েছেন । বাংলাদেশ এনজিও ফাউন্ডেশনই সর্ব প্রথম উখিয়াতে নির্যাতিত রোহিঙ্গাদের আর্থিক সাহার্য্য প্রদান করে । তিনি বলেন বাংলাদেশ এনজিও ফাউন্ডেশনের আর্থিক সহযোগিতায় আমরা সেবা সংস্থার মাধ্যমে কুষ্টিয়াতে প্রতি বছর ১০০ জন আর্থিক অস্বচ্ছল ছাত্র/ছাত্রীকে বিনামূল্যে ৬ মাস মেয়াদী কম্পিউটার প্রশিক্ষণ প্রদান করছি।
বিশেষ অতিথির বক্তব্যে মোছা: শামসুন্নাহার বলেন, মানুষ হত্যাকারী, নাশকতা সৃষ্টিকারী এবং মাদকাসক্ত ব্যক্তি ইহকালে যেমন অসুখি তেমন পরকালেও রয়েছে তাঁর জন্য কঠিন আজাব। তাই সৃষ্টির সেরা জীব হিসেবে আমাদেরকে কোরআন সুন্নাহর আলোকে জীবন অতিবাহিত করতে হবে।
সভাপতির বক্তব্যে শামছুল আলম বলেন, বাংলাদেশ এনজিও ফাউন্ডেশনের মানব কল্যাণমুখি কর্মসুচি সত্যিই প্রশংসার দাবিদার। তিনি বলেন সেবা সংস্থার নির্বাহী পরিচালক স্বপন ভাই দীর্ঘদিন যাবৎ সমাজ সেবামুলক কাজ করে মানুষের ভালোবাসা অর্জন করেছেন। তিনি বলেন আজকের প্রতিপাদ্য বিষয় জঙ্গি,নাশকতা মাদক বিরোধী সমাবেশ-র‌্যালী ও আলোচনা সভায় উপস্থিত হতে পেরে ধন্য মনে করছি। তিনি বলেন বিনা মূল্যে কম্পিউটার প্রশিক্ষণ দিয়ে সেবা সংস্থা কুষ্টিয়াতে বিরল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে । তিনি আরো বলেন বাংলাদেশ এনজিও ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যানের কাছে অনুরোধ জানাবো সেবা সংস্থাকে যেন হতদরীদ্র মানুষের কল্যাণে আরো বেশী কাজ করার সুযোগ প্রদান করেন।আলোচনা শেষে জঙ্গি,নাশকতা মাদক বিরোধী র‌্যালী করা হয়।
এরপর বাংলাদেশ এনজিও ফাউন্ডেশনের আর্থিক সহযোগিতায় পরিচালিত বিনামুল্যে ৬ মাস মেয়াদী কম্পিউটার প্রশিক্ষণার্থীদের সমাপণী পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়।