| |

Ad

বর্তমান সরকার কৃষিবান্ধব সরকার ———— শিল্পমন্ত্রী নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন

আপডেটঃ ১০:৩৫ পূর্বাহ্ণ | ফেব্রুয়ারি ১০, ২০১৯

এস,এম,মনির হোসেন জীবন ॥ শিল্পমন্ত্রী নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন বলেছেন, বর্তমান সরকার কৃষিবান্ধব সরকার। দেশের জনসংখ্যা দিনদিন বাড়লেও আবাদী জমি কমে যাচেছ। বাড়তি জনগোষ্ঠীর খাদ্য চাহিদা মেটাতে অল্প জমিতে অধীক পরিমান ফসল ফলানোর কোন বিকল্প নেই। তিনি বলেন, তলা বিহীন ঝুটির দেশ বাংলাদেশ এখন বিশ্বের মধ্যে রোল মডেল। বাংলাদেরেশর স্বপ্ন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দেখেছিলেন। নেতা বিহীন বাংলাদেশ, আন্দোলন সংগ্রামের বাংলাদেশ ও মুক্তিযোদ্ধের বাংলাদেশের প্রত্যাশা নিয়ে জাতি আজ তাকিয়ে আছে। শনিবার দুপুরে রাজধানীর বসুন্ধরা ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটিতে অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ ফার্টিলাইজার এসোসিয়শন (বিএফএ) এর ২৫তম বার্ষিক সাধারণ সভায় প্রথান অতিথির বক্তব্যে শিল্পমন্ত্রী নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন এসব কথা বলেন।

বাংলাদেশ ফার্টিলাইজার এসোসিয়শন (বিএফএ) চেয়ারম্যান মো: কামরুল আশরাফ খান পেটনের সভাপতিত্বে ২৫তম বার্ষিক সাধারণ সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন শিল্প প্রতিমন্ত্রী মো: কামাল আহমেদ মজুমদার (এমপি)। এছাড়া আলোচনা অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন শিল্পমন্ত্রনালয়ের ভারপ্রাপ্ত সচিব মো: আব্দুল হালিম, কৃষি মন্ত্রনালয়ের ভারপ্রাপ্ত সচিব মো: নাসিরুজ্জামান,এফবিসিসিআই’র সভাপতি মো: শফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন ও নরসিংদী-পলাশ-২ আসনের এমপি আনোয়ারুল আশরাফ খান দীলিপ প্রমুখ। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ ফার্টিলাইজার এসোসিয়শন (বিএফএ) নেতা মো: শওকত চৌধুরী।

শিল্পমন্ত্রী নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন বলেন, সিলেটের ফেঞ্জুগঞ্জে নতুন সার কারখানা শাহজালাল ফার্টিলাইজার ফ্যাক্টরী নির্মাণ করা হয়েছে। বছরে এ কারখানায় ৫ লাখ ৮০ হাজার ৮০০ মেট্রিকটন গ্রানুলার ইউনিয়া সার উৎপাদন করনা হচেছ।তিনি আরো বলেন, বর্তমান সরকারের আমলে দেশের সর্ববৃহৎ সারকারখানা ঘোড়াশাল-পলাশ ইউনিয়া ফার্টিলাইজার প্রকল্প (জিপিইউএফপি) বাস্তবায়নের জন্য জাপানের ঔতিহ্যবাহী মিতসুবিশি হেভি ইন্ড্রাষ্টিজ লিমিটেড এবয় চায়না ন্যাশনাল কেমিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং কনষ্ট্রাকশন কোম্পানীর সাথে চুক্তি সাক্ষর করা করেছি। এ সার কারখানা নির্মানে প্রায় ১০ হাজার ৪৬০ কোটি ৯১ লাখ টাকা ব্যয় হবে।

শিল্পমন্ত্রী বলেন, শিল্পমন্ত্রনালয়ের উদ্যোগে দেশের বিভিন্ন জেলায় ১৩টি বাফার গুদাম তৈরীর কাজ চলছে। আরও ৩৪টি বাফার গুদাম নির্মানের প্রকল্প একনেকে অনুমোদন পেয়েছে। মন্ত্রী আরো বলেন, জনগনের খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করা রাষ্ট্রের দায়িত্ব। জাÍীয় স্বার্থে এধরনের ইতিবাচক উদ্যোগ অব্যাহত থাকবে। এ উদ্যোগ খাদ্য-শষ্যেও বাম্পার ফলনে বিশেষ ভুমিকা রাখছে। বর্তমান সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সরকারের সুশাসনের একটি উজ্বল দৃষ্ঠান্ত।শিল্পমন্ত্রী বলেন, সার কৃষি উৎপাদনের একটি স্পর্শকাতর উপকরন। জমিতি সময় মত সার প্রয়োগ করতে না পারলে কৃষি উৎপাদন ব্যাহত হবে। তাই উৎপাদনের ধারা অব্যাগত রাখতে সঠিক সময়ে চাহিদা মাফিক সার সরবরাহ নিশ্চিটত করতে হবে।

শিল্পমন্ত্রী নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন বলেন, আমি নিজেও একজন কৃুষক। আমি কৃষকের সন্তান। এটি আপনাদের অবদান। আপনাদের দাবী দাওয়া গুলো যুক্তসংগত।তিনি বলেন, আমরা ব্যবসা বান্ধব সরকার। আমরা ব্যবসা করতে চাই না। আমরা ব্যবসায়ীদেরকে আগামী দিনে আরো বেশি করে সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যেতে চাই। সমস্যা ও দাবী দাওয়া গুলো আমরা আলাপ আলোচনার মাধ্যমে পর্যায়ক্রমে সমাধান করবো।
বিশেষ অতিথি হিসেব্যে শিল্প প্রতিমন্ত্রী মো: কামাল আহমেদ মজুমদার বলেছেন, উন্নত বাংলাদেশ বিনির্মাণে কৃষিখাতের আধুনিকায়নের মাধ্যমে দেশের সর্বত্র কুৃষি বিপ্লবের বিকাশ ঘটাতে হবে। সকলের জন্য খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করার সঙ্গে কৃষি পণ্যেও রপ্তানী বৃদ্ধি করার মাধ্যমে টেকসই উন্নয়নের পথে একধাপ এগিয়ে যেতে হবে।

তিনি আরো বলের, ২০৩০ সালের মধ্যে আমরা টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা সমূহ অর্জন করতে চাই। বাংলাদেশ এখন বিশ্বের মধ্যে রোল মডেল।
বিশেষ অতিথির বক্তব্যে শিল্পমন্ত্রনালয়ের ভারপ্রাপ্ত সচিব মো: আব্দুল হালিম বলেন, আমরা বাংলাদেশকে নিয়ে এখন নতুন ভাবে স্বপ্ন দেখছি। বাংলাদেশ বিশ্বের মধ্যে একদিন স্বপনের নগরী হবে। মাছ উৎপাদনের আমরা এখন বিশ্বের মধ্যে তৃতীয় অবস্থানে রয়েছি। ধান উৎপাদনের ক্ষেত্রে আমরা চতুর্থ স্থানে আছি। তিনি আরো বলেন, স্বাধীনতার পর দেশে আমাদের ধান,পাট,চাল,ভুট্রা উৎপাদন ছিল প্রায় ১০ লাখ মেট্রিক টন। সেখানে আমরা এখন প্রায় ৪ কোটি ১৩ লাখ মেট্রিকটন খাদ্য উৎপাদন করছি।

কৃষি মন্ত্রনালয়ের ভারপ্রাপ্ত সচিব মো: নাসিরুজ্জামান বলেন, বর্তমান সরকার হলো কৃষি বান্ধ, জনবান্ধব ও ব্যবসা বান্ধব সরকার। সারে প্রতি বছর সরকারের পক্ষ থেকে বড় ধরনের সাবসিডি দেওয়া হয়। তারপর ও আমরা প্রতি বছর এখাতে ২৫ লাখ ও বেশি মেট্রিকটন ইউরিয়া ও রাসায়নিক সার সরকারের পক্ষ থেকে বিতরণ করছি।তিনি বলেন, সারা দেশে প্রায় ৪৭টি বড় ধরনের সারের গুদাম রয়েছে। যে জেলায় সার কারখানা ও গুদাম নেই সেখানে সেটি তৈরী করা হবে।

এফবিসিসিআই’র সভাপতি মো: শফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন বলেন, এফবিসিসিআই’র ৩৮০টি এসোসিংেশনের মধ্যে (বিএফসি) একটি অন্যতম সংগঠন। ২০২১ সালে আমরা মধ্য আয়ের দেশ এবং ২০৪১ সালে আমরা বিশ্বের মধ্যে উন্নত দেশে পরিণত হবো। এদশ এগিয়ে যাবে এবং আগামী দিনে আরো বেশি এগিয়ে যাবে।অনুষ্টানে বাংলাদেশ ফার্টিলাইজার এসোসিয়শন (বিএফএ) এর ২৫তম বার্ষিক সাধারণ সভায় ১৮জন সেরা ডিলারদের মধ্যে চেক বিতরণ করা হয়। মানীয় শিল্পমন্ত্রী ও শিল্প প্রতিমন্ত্রী চেক তোলে দেন। এসময় (বিএফএ) চেয়ারম্যান মো: কামরুল আশরাফ খান পেটন সংগঠনের পক্ষ থেকে শিল্পমন্ত্রী নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন ও শিল্প প্রতিমন্ত্রী মো: কামাল আহমেদ মজুমদারকে ফুলের শুভেচছা জানান এবং সম্মাননা ক্রেষ্ট প্রদান করেন। অনুষ্ঠানে দেশের বিভিন্ন জেলা ও উপজেলা থেকে আগত ডিলাররা অংশ গ্রহন করেন। পরে এক মনোঞ্জ সাংস্কৃতিক অনুষ্টানের আয়োজন করা হয়।