রবিবার ২৬শে মে, ২০১৯ ইং ১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

Ad

এই সরকার গরিব, শ্রমিক, কৃষক, মেহনতি মানুষের সরকার নয়-আব্দুল্লাহ আল নোমান

আপডেটঃ ৬:২৯ পূর্বাহ্ণ | মে ১৮, ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক : ১৭ মে ২০১৯ শুক্রবার সকাল ১১ টায় নাগরিক অধিকার আন্দোলন ফোরামের উদ্যোগে জাতীয় প্রেসক্লাবের মওলানা মুহাম্মদ আকরাম খাঁ হলে ‘প্রখ্যাত সাংবাদিক মাহফুজ উল্লাহর মৃত্যুতে স্মরণসভা’ অনুষ্ঠিত হয়।প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ও সাবেক মন্ত্রী আব্দুল্লাহ আল নোমান বলেন, ‘এই সরকার গরিব, শ্রমিক, কৃষক, মেহনতি মানুষের সরকার নয়।

তাই আমরা চাই দেশে গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠা হোক। জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট আমাদের প্রয়োজনে, জাতির প্রয়োজনে, একটি বিশেষ পরিস্থিতিতে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। কিন্তু তাই বলে, আমাদের সঙ্গে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সকল কর্মসূচি এক হবে বিষয়টা তেমন নাও হতে পারে।’

পাটকল শ্রমিকদের দাবির বিষয়ে সাবেক এই মন্ত্রী বলেন, ‘সারা বাংলাদেশের পাটকল শ্রমিকরা বকেয়া মজুরি-ভাতার দাবিতে তারা রাস্তায় নেমেছে। তারা রাস্তায় নেমে যাওয়ার পরও তাদের বিষয় নিয়ে সরকারের সঙ্গে কোন কথা হচ্ছে না। কিন্তু সরকার কি করছে, যারা ব্যাংক লুট করেছে, যারা দুর্নীতি করেছে, তাদের ঋণ ও তাদের সবকিছু স্বাভাবিক দৃষ্টিতে দেখছে।’

স্মরণসভায় বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল বলেন, ‘হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দী, মাওলানা আব্দুল হামিদ খান ভাসানী এবং শেখ মুজিবুর রহমানের যে আওয়ামী লীগ সেই আওয়ামী লীগের সঙ্গে এই আওয়ামী লীগ যায় না। সেই আওয়ামী লীগের একটা সম্মান ছিল, গৌরব ছিল, মর্যাদাবোধ ছিল।’

মাহফুজ উল্লাহকে স্মরণ করে সাবেক এই সংসদ সদস্য বলেন, ‘অনেক সময় নদীপথে আবহাওয়া খারাপ হয়। তখন নৌযানগুলো যেন বিভ্রান্ত না হয় তার জন্য মোহনাগুলোতে লাইটহাউজ থাকে। যেখান থেকে সিগন্যাল দেয়া হয় এই পথে না, আপনি এই পথে যাবেন। মাহফুজ উল্লাহ সাহেব ছিলেন তেমনই একজন লাইটহাউজ।’

নাগরিক অধিকার আন্দোলন ফোরামের সহ-সভাপতি খলিলুর রহমান ইব্রাহিমের সভাপতিত্বে এবং সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক এম জাহাঙ্গীর আলমের সঞ্চালনায় স্মরণসভায় আরও বক্তব্য রাখেন বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য আবু নাসের মোহাম্মদ রহমাতুল্লাহ, শ্রমিক দলের সভাপতি আনোয়ার হোসেন, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির সহ-সভাপতি ফরিদ উদ্দিন আহমেদ, বাংলাদেশ ডেমোক্রেটিক কাউন্সিলের সভাপতি এম.এ হালিম, মৎসজীবী দলের সদস্য ইসমাইল হোসেন সিরাজী, কৃষক দল কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ইঞ্জি: আব্দুস সালাম, কোতয়ালী থানা কৃষক দলের সভাপতি ইঞ্জি: মোফাজ্জল হোসেন হৃদয়, শাহবাগ থানা কৃষক দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মনির হোসেন ব্যাপারী প্রমুখ।