বুধবার ২৬শে জুন, ২০১৯ ইং ১২ই আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

Ad

সর্বশেষঃ

বাংলাদেশের গ্যালারিতে নয় পাকিস্তানের খেলা গ্যালারিতে গিয়ে দেখলেন তারেক রহমান

আপডেটঃ ৬:১৭ অপরাহ্ণ | জুন ০৬, ২০১৯

বাংলাদেশের নয় পাকিস্তানের খেলা গ্যালারিতে গিয়ে দেখলেন      

তারেক রহমান………..                                                     

ক্রীড়া প্রতিবেদক :বাংলাদেশের খেলা দেখার সময় না হওয়ায় পরিবারসহ পাকিস্তানের খেলা গ্যালারিতে গিয়ে দেখলেন তারেক রহমান। নটিংহ্যামের ট্রেন্ট ব্রিজ স্টেডিয়ামে মঙ্গলবার পাকিস্তান ও ইংল্যান্ডের মধ্যকার এ ম্যাচ দেখতে পরিবার-সহ মাঠে উপস্থিত হয়েছিলেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান।

লাইভে স্টার স্পোর্টস-সহ বেশ কয়েকটি আন্তর্জাতিক টিভি চ্যানেলে তারেক রহমানকে পাকিস্তান ও ইংল্যান্ডের মধ্যকার এই ম্যাচ নিয়ে মাঠে বেশ উচ্ছ্বাস প্রকাশ করতে দেখা গিয়েছে।এবিষয়ে এক প্রত্যক্ষদর্শী পাকিস্তানি নাগরিক ইমরান সালেহ বলেন, বাংলাদেশের অন্যতম বিরোধী দলের নেতা তারেক রহমান নটিংহ্যামের ট্রেন্ট ব্রিজে পাকিস্তানের খেলা দেখতে এসেছেন এটা দেখে খুব-ই ভালো লাগছে। তিনিপাকিস্তানের খেলা বেশ উপভোগ করেছেন।

আমার পাশেই পরিবার নিয়ে তিনি পাকিস্তানের খেলা দেখতে বসেছিলেন। তবে আমার কাছে একটু অবাক লেগেছে যে তিনি বাংলাদেশি হয়ে বাংলাদেশের খেলা দেখেন নি। তার এই আচরণে বোঝা গেলো এত বছর পরেও তিনি পাকিস্তানের সাথে তাদের পূর্বসূরিদের সম্পর্কের কথা ভুলে যাননি।এ প্রসঙ্গে বিএনপি থেকে বহিষ্কৃত লন্ডন প্রবাসী এক প্রবীণ নেতা বলেন, তারেক রহমানের মধ্যে পাকিস্তান প্রীতি এখনও কাজ করে।

জিয়াউর রহমানের মত তারেক রহমানও পাকিস্তানের সাথে সম্পর্ক রাখতে বধ্য পরিকর। তাই বাংলাদেশের খেলা দেখতে তার হাতে সময় না হলেও পাকিস্তানের খেলা দেখতে তিনি ঠিকই মাঠে যেতে পারেন। বিন্দু পরিমাণ দেশপ্রেম নেই তারেক রহমানের ভেতরে।

অপরদিকে তারেক রহমানের খেলা দেখার প্রসঙ্গে যুক্তরাজ্য বিএনপির সভাপতি এম এ মালিক বলেন, আসলে পাকিস্তানের খেলা দেখার বিষয়টিকে যেভাবে উপস্থাপন করা হয়েছে ঘটনাটি সেরকম না। তারেক রহমান পরিবারসহ খেলা দেখার জন্য বাংলাদেশের টিকিট সংগ্রহের চেষ্টা করেছিলেন।

টিকিট সংগ্রহ করতে ব্যর্থ হয়ে পরের দিনের টিকিট কাটা হয়। কাকতালীয়ভাবে ম্যাচটি পাকিস্তানের ছিল। আর বন্ধু রাষ্ট্র হিসেবে পাকিস্তানের সাথে তারেক রহমান ও বিএনপির সম্পর্ক সব সময় ভালো। আমরা ক্ষমতায় গেলেও পাকিস্তানের সাথে বৈরিতা নয় বন্ধুত্ব আরো গাঢ় করবো।