সোমবার ১৬ই সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং ১লা আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

Ad

সর্বশেষঃ

ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে বারহাট্টায় ধর্ষক প্রধান শিক্ষককে গ্রেপ্তারের দাবিতে মানববন্ধন

আপডেটঃ ১:৪৫ পূর্বাহ্ণ | জুন ১৫, ২০১৯

বারহাট্টা (নেত্রকোনা) সংবাদদাতা: নেত্রকোনার বারহাট্টা উপজেলার হাজীগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণীর এক ছাত্রীকে ধর্ষণের দায়ে থানায় দায়েরকৃত মামলার আসামি ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আইন উদ্দিনকে গ্রেপ্তারসহ শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছে বাংলাদেশ নারী প্রগতি সংঘ ও এলাকাবাসী। বৃহস্পতিবার বিকেলে উপজেলা সদরের পূর্ব বাজারস্থ থানার সামনের সড়কে সামাজিক সংগঠন ইউথগ্রুপ, কমিউনিটি ফোরাম ও দল সদস্যসহ বিভিন্ন ব্যানারে এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করে। প্রায় এক ঘন্টা ব্যাপী চলা এ মানববন্ধনে ধর্ষক প্রধান শিক্ষক আইন উদ্দিনকে দ্রুত গ্রেপ্তারসহ তার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়ে মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, কমিউনিটি ফোরামের সভাপতি আ. শহীদ খান সেজু, মহিলা পরিষদের সভাপতি নার্গিস জাহান, ইউবিআর- ২ প্রকল্পের ম্যানেজার বাদশা মিয়া, সি.এস প্রকল্পের কো- অর্ডিনেটর সি তা মল্লিক, উন্নয়ন কর্মকর্তা মাজহারুল ইসলাম প্রমূখ । মানববন্ধনে এলাকার বিভিন্ন শ্রেণী পেশার প্রায় পাঁচ শতাধিক লোক অংশ গ্রহণ করেন। উল্লেখ্য, উপজেলা হাজীগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণীর ওই ছাত্রীটিকে গত ২৫ ফেব্রুয়ারি টিফিনের সময় বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আইন উদ্দিন নিজের কক্ষে ডেকে পাঠান। এরপর তাকে গোসলখানায় গিয়ে থালা-বাটি ধুয়ে দিতে বলেন। এর কিছুক্ষণ পর প্রধান শিক্ষক আইন উদ্দিন সেখানে গিয়ে ওই ছাত্রীকে ধর্ষন করার চেষ্টা করেন। এ সময় তিনি ওই ছাত্রীকে হুমকি দেন, এ ঘটনা কাউকে জানালে তাকে হত্যা করা হবে। প্রধান শিক্ষকের হুমকির ভয়ে ওই ছাত্রীটি প্রথমে এ বিষয়টিকে চেপে যায়। পরে রোজার ছুটিতে ওই ছাত্রীটি তার এক বোনের বাড়িতে বেড়াতে যায়। সেখানে সে ঘুমের ওষুধ খেয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করে। তখন বিষয়টি নিয়ে অনেকের মনে সন্দেহ দেখা দেয়ার পর মেয়েটি তার স্বজনদের কাছে এ ঘটনাটি খুলে বলে। এরপর গত ১০ জুন ওই ছাত্রী বাদি হয়ে ধর্ষক প্রধান শিক্ষক আইন উদ্দিনকে আসামি করে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে বারহাট্টা থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। বারহাট্টা থানার ওসি তদন্ত মোঃ মকবুল হোসেনের বলেন আসামী আইন উদ্দিনকে গ্রেপ্তারের জন্য পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।