সোমবার ২২শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং ৮ই আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

Ad

বদরগঞ্জে জমিসংক্রান্ত বিরোধের জের আহত হওয়া তিন নারীর প্রাণ সংশয়

আপডেটঃ ১১:৪৭ অপরাহ্ণ | জুন ২০, ২০১৯

বদরগঞ্জ (রংপুর) প্রতিনিধিঃ ময়দুল ইসলাম -:রংপুরের বদরগঞ্জে জমিসংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে তিন নারীকে কুপিয়ে এবং পিটিয়ে হত্যার চেষ্টা করেছে তাদের প্রতিপক্ষের লোকজন। গুরুতর আহত অবস্থায় তিন নারীকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করার পর তাদের প্রাণ সংশয় দেখা দিয়েছে। এ ব্যাপারে ১২জন ব্যক্তিকে আসামী করে থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়।

লিখিত অভিযোগে জানা গেছে, উপজেলার গোপিনাথপুর খিয়ারপাড়া গ্রামের আজহার আলীর স্ত্রী মোছাঃ সাহেবা বেগমের সাথে পাশর্^বর্তী রামনাথপুর ইউনিয়নের বাংলারহাট মাদরাসাপাড়ার মোঃ মকবুল হোসেনের দীর্ঘদিন ধরে জমিসংক্রান্ত বিরোধ চলে আসছে। গত মঙ্গলবার (১৮জুন) বিকালে মকবুল হোসেন ও তার লোকজন দেশীয় অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে সাহেবা বেগমের ৫৬শতাংশ জমি নিজেদের দখলে নেওয়ার চেষ্টা করে। খবর পেয়ে সাহেবা বেগম তার মেয়ে তহমিনা বেওয়া, ও তার ভাবী মাহামুদা বেগম ঘটনাস্থলে এসে জমি দখলে প্রাণপন বাধা দেয়। এসময় জমি দখল চেষ্টাকারীরা সাহেবা বেগমকে (২৪) দা দিয়ে কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। সেইসাথে তার মেয়ে তহমিনা বেওয়া ও ভাবি মাহামুদা বেগমকে লাঠি দিয়ে বেদম মারপিট করে। পরে স্থানীয় লোকজন এগিয়ে এসে আহত অবস্থায় তিন নারীকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য উপজেলা স্বাস্থ কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। এ ব্যাপারে সাহেবা বেগম বাদী হয়ে ভুমিদষ্যু মকবুল হোসেন, সাজেদুল ইসলাম ও আঃ শুকুর আলীসহ ১২জন জমি দখলের চেষ্টাকারীর নামে বদরগঞ্জ থানায় এজাহার দায়ের করেন।

এদিকে গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুর ২টায় উপজেলা স্বাস্থ কমপ্লেক্স সুত্রে জানা যায়, গুরুতর জখম হওয়া ওই তিন নারীর শারীরিক অবস্থার চরম অবনতি হওয়ায় তাদের প্রাণ সংশয় রয়েছে মর্মে উন্নত চিকিৎসার জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থান্তর করা প্রস্তুতি চলছে। অন্যদিকে অভিযুক্ত মকবুল হোসেনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি রাগান্বিত সুরে বলেন, যারা আমার বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ করেছে আমি তাদের কাউকেই ছাড় দেব না। এতে আমার যা হবার হবে।