শনিবার ২৮শে নভেম্বর, ২০২০ ইং ১৩ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

Ad

সর্বশেষঃ

আশুলিয়া ধামসোনা ইউপি আওয়ামীলীগের সভাপতির বিরুদ্ধে মিথ্যাচার প্রচারে প্রতিবাদ করেছে এলাকাবাসী…

আপডেটঃ ১১:০৩ অপরাহ্ণ | মে ০৩, ২০২০

নিজস্ব প্রতিনিধি-মোঃ নুর হোসেন -: এ সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করার জন্য ধামসোনা ইউপি আওয়ামীলীগের সভাপতি আব্দুল লতিফ মন্ডলের বিরুদ্ধে মিথ্যা অপপ্রচার জনমনে ক্ষোভ ও নিন্দা জানিয়ে তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছে ৬নং ওয়ার্ডের দক্ষিণ শ্রীপুর তালপট্টি এলাকার সরকার বিরুধি কুচক্রী মহল। সরকারের ভালো কাজগুলির বিরুধিতা করে সরকার দলিয় নেতা কর্মীদের সাথে সংঘর্ষে জড়িয়ে নানা গুজব ছড়িয়ে সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করার পায়তারা করছে।এ নিয়ে ঐ এলাকার জনপ্রিয় ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি লতিফ মন্ডলের বিরুদ্ধে ভিত্তিহীন মিথ্যা উদ্দেশ্যে প্রনোদিত সংবাদ প্রচার করে তার মান সম্মান হানীর অপচেষ্টা করছে। এ নিয়ে জনসাধারণের মধ্যে ক্ষোভ দেখা দিয়েছে। স্হানীয় সূত্রে জানা যায়, দেশে করোনা ভাইরাস নিয়ে জনসচেতনতার জন্য সরকার লকডাউন দিয়ে সকল কিছু বন্ধ ঘোষণা করেন, তখন এই এলাকায় প্রতিটি পাড়া মহল্লায় সতর্কতামূলক নিয়ম চালু করা হয়। সে মোতাবেক গত ১২/০৪/২০২০ তারিখে তালপট্টি জামে মসজিদের মাইকে ঘোষনা দিয়ে স্হানীয় বাড়ি ওয়ালেদের নিয়ে একটি মিটিং বসানো হয়। ঐ মিটিংয়ে উপস্থিত ছিলেন হাজী আতাউর রহমান, হাজী মিজানুর রহমান, হাজী জামাল, হাজী শাহজাহান, মোঃ জাকির মিয়া,মিলন মিয়া,হাজী শফিউল্লাহ, হাজী আমজাদ, মোস্তফা, আবুল বাশার সহপ্রায় দেড় শতাধিক বাড়ি ওয়ালারা। তারা ঐ এলাকার করোনা ভাইরাস থেকে সুরক্ষার জন্য মানোনীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার ৩১ দফা নির্দেশনা মেনে চলার জন্য সকলে একমত পোষণ করে। তারা এ নিয়ে ১৬/০৪/২০২০ তারিখে দ্বিতীয় বারের মতো আবারও মাইকে ঘোষনা দিয়ে মিটিং করে। সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে ঐ এলাকায় বহিরাগত লোকদের প্রবেশ বন্ধ ও প্রয়োজন ছাড়া কেউ বাহিরে যেতে পারবে না। সকাল ৬টা থেকে বেলা ১১টা পর্যন্ত স্হানীয় দোকান খোলা থাকবে। সন্ধ্যা ৬টার মধ্যে বাসায় ঢুকতে হবে। অপরিচিত লোকদের প্রবেশ বন্ধে ১০জন প্রহরী নিয়োগ দিশেছেন। প্রতিদিন জনপ্রতি ২৫০ টাকা বেতন দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়। বিধায় প্রতি বাড়ি থেকে ৫০০ টাকা আদায় করে ফান্ড গঠন করা হয়। মসজিদের মোয়াজ্জেম কে ক্যাশিয়ার করা হয়। উক্ত ঘটনায় এলাকার কিছু লোক একমত হতে না পারায়, বাঁধা প্রদান করে। সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করায় জনমনে বিভ্রান্তি ছড়িয়ে পড়ে। এ নিয়ে জনসাধারণের মধ্যে ক্ষোভ দেখা দিয়েছে। তারা এ ধরনের মিথ্যা সংবাদের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়েছে। সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্নকারীদের আইনের আওতায় নিয়ে বিচারের জোড় দাবী জানায় এলাকাবাসী।.