শনিবার ২৮শে নভেম্বর, ২০২০ ইং ১৩ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

Ad

সর্বশেষঃ

গাজীপুরে অসহায় মানুষের পাশে দাড়ালেন সাংবাদিক কাজী রফিক

আপডেটঃ ১০:০১ পূর্বাহ্ণ | মে ০৯, ২০২০

শেখ রাজীব হাসান, নিজস্ব প্রতিনিধিঃ করোনাভাইরাস সংক্রমণে সারা বিশ্বের মত বাংলাদেশও স্তব্ধ ! দেশ যখন একের পর এক মৃত্যুর হিসেব গুনছে ঠিক সেই মুহূর্তের মধ্যেও সাধারণ মানুষের মাঝে একটু সচেতনতা ও গরিব অসহায় মানুষ গুলোর সহায়তা করার লক্ষে এগিয়ে চলেছেন দৈনিক ইত্তেফাক পত্রিকার টঙ্গী সংবাদদাতা কাজী রফিক । গতকাল ৮ই মে শুক্রবার টঙ্গীর স্টেশন রোড এলাকায় সাংবাদিক কাজী রফিক ৫ম বারের  মত এবারেও করোনায় কর্মহীন অসহায় মানুষের মাঝে ত্রাণ বিতরন করেন। সারাদেশে লকডাউন ঘোষণার পর থেকেই তিনি অসহায় মানুষের মাঝে বেশ কয়েকটি ধাপে খাদ্য সামগী ও রোজাদার মানুষের মাঝে ইফতার বিতরণ করেন। এরই ধারাবাহিকতায় এবারেও প্রায় পাঁচ শতাধিক অসহায় পরিবারের মাঝে খাবার সামগ্রী বিতরণ করা হয়। এছাড়াও তিনি পবিত্র ঈদে সহকর্মী সাংবাদিক ভাইদের কিছু উপহার সামগ্রী দেওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

কাজী রফিক বলেন, দেশে করোনা ভাইরাসের কারনে মহামারী যখন সর্বত্র ছড়িয়ে পড়ে। তখন একজন সংবাদকর্মী হিসেবে নিজের জমানো অর্থ ও হাতের দামী মোবাইল ফোন বিক্রি করে অসহায় মানুষের মাঝে ত্রান-সাহায্য বিতরণ শুরু করি। যেহেতু টঙ্গী খুবই ঘনবসতিপূর্ণ এলাকা এখানে অসহায় মানুষের সংখ্যা অনেক বেশি। বিধায় বিভিন্ন সামাজিক রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গের ত্রান সব জায়গা না পৌঁছানোর কারণে আমি নিজেই উদ্যোগ নিয়েছেন গরীব অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানোর জন্য। এরই ধারাবাহিকতায় আজ প্রায় পাঁচশত পরিবারের মাঝে খাদ্য বিতরণ করেছি।সকলের দোয়া থাকলে আগামী দিন গুলোতে আমার সাধ্যমত অসহায় মানুষের পাশে থাকবো।

জানা যায়, আগামী ২৫ রমজান পর্যন্ত তিনি এই কার্যক্রম চালিয়ে যাবেন। এব্যাপারে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল সাধুবাদ জানিয়ে বলেন, একজন সংবাদকর্মীর কাজ সংবাদ সংগ্রহ করা কিন্তু তিনি এই মহামারি করোনা ভাইরাসের সময় মানুষের মাঝে দাড়িয়েছেন আমি তার এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানাই। এছাড়া তিনি মহামারি করোনায় আটকে পড়া তৃতীয় লিঙ্গদের বাসায় গিয়ে ও খাদ্যদ্রব্য পৌঁছে দেন।