বুধবার ২৩শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং ৮ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

Ad

সর্বশেষঃ

চাঁদপুরে করোনায় মৃতদেহ দাফনে প্রস্তুত ছাত্রলীগের ৪১ সদস্য….

আপডেটঃ ৭:১৩ অপরাহ্ণ | মে ২২, ২০২০

রাফিউ হাসানঃ প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেলে তার জানাজা ও দাফন ইসলামী নিয়মে সম্পন্ন করতে এগিয়ে এসেছেন ৪১ জন ছাত্রলীগ কর্মী। প্রাথমিকভাবে চাঁদপুরের শাহরাস্তিতে এ কাজটির উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

শাহরাস্তি উপজেলার ছাত্রলীগের সুযোগ্য কর্মী সাজিদ মাহমুদ সাদ্দামের তত্ত্বাবধানে উল্লেখিত সদস্যদের মধ্যে রয়েছেঃটামটা উত্তর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের কর্মী কামরুল মুন্সি, হৃদয় পাটোয়ারী, সোহরাব হোসেন, আরিফুর রহমান মোল্লা, আফসার আহমেদ, জুয়েল মুন্সী, হাসান পাটোয়ারী, ফরহাদ দর্জি।টামটা দক্ষিণ ইউনিয়ন ছাত্রলীগের কর্মী বাহাউদ্দীন জুয়েল, ওমর ফারুক জয়, আশিকুর রহমান আবির, তাহসিফ হাসান বাবু, ইমন, ইব্রাহিম সৈকত মাসুম।মেহের উত্তর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের কর্মী মোঃ শরীফ মঞ্জুর, মহিন উদ্দিন বাদশা, নুরে আলম, মোঃ মিশু, মোঃ নাহিদ।মেহের দক্ষিণ ইউনিয়ন ছাত্রলীগের মহিন উদ্দীন। সূচিপাড়া উত্তর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের কর্মী রাসেল রাজ, সোহাগ চৌধুরী, কাজী ইমরান।সূচিপাড়া দক্ষিণ ইউনিয়ন ছাত্রলীগের কর্মী তারেক হোসেন, মেহেদি হাসান বাপ্পি, রিয়াজ আহমেদ।চিতোষী পশ্চিম ইউনিয়ন ছাত্রলীগের কর্মী রকিবুল হাসান, সফিকুল ইসলাম শান্ত, হৃদয় খান, খালেদ আহমেদ। চিতোষী পূর্ব ইউনিয়ন ছাত্রলীগের কর্মী সোহেল আহমেদ, নাজমুল হাসান রাতুল, শাহরিয়ার শাকিল, নাসির,এন এস নোমান।রায়শ্রী উত্তর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের কর্মী মামুন মজুমদার, হাবিবুর রহমান।রায়শ্রী দক্ষিণ ইউনিয়ন ছাত্রলীগের কর্মী ইব্রাহিম মাসুম, বাদল চৌধুরী, মাসুদ আলম।এছাড়া শাহরাস্তির বিভিন্ন ইউনিয়নের আরো ৬০/৭০ জন ছাত্রলীগ কর্মী এ কাজে অংশ নেয়ার আগ্রহ প্রকাশ করেছেন।
শুক্রবার (২২ মে) উপজেলার সুরসই সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের অভ্যন্তরে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নিয়মানুযায়ী করোনায় মৃতদেহ দাফন এবং সমাহিত করার বিষয়ে তাদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়েছে।

জানা যায়, করোনাভাইরাসের হটস্পট চাঁদপুর জেলায় এ পর্যন্ত ৯৭ জন আক্রান্ত হয়েছেন, প্রায় ৮ জন মৃত্যুবরণ করেছেন। সুস্থ হয়েছেন ২১ জন ও চিকিৎসাধীন আছেন ৬৮ জন। চাঁদপুরের শাহরাস্তি উপজেলায় প্রতিদিনই বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। দেশের বিভিন্ন এলাকার মতো এ উপজেলায়ও করোনায় মৃতদেহ দাফনে সংকট দেখা দিয়েছে। ইতোপূর্বে মারা যাওয়া পোশাক শ্রমিক স্থানীয় জনপ্রতিনিধি এবং স্থানীয় ছাত্রলীগের নেতৃবৃন্দের সার্বিক সহায়তায় সমাহিত করা হয়েছে। এ দুঃসময়ে স্থানীয় সংসদ সদস্য মেজর (অবঃ) রফিকুল ইসলাম বীর উত্তম এর মানবিক দিকনির্দেশনায় এগিয়ে এসেছেন ছাত্রলীগের ৪১ জন নেতাকর্মী। শাহরাস্তি উপজেলার ছাত্রলীগের একনিষ্ঠ কর্মী সাজিদ মাহমুদ সাজ্জাদের নেতৃত্বে ছাত্রলীগের এই টিম এ উপজেলায় করোনাভাইরাস বা এর উপসর্গ নিয়ে মৃত্যুবরণকারী সবার দাফন এবং সমাহিতের কাজ সম্পন্ন করবেন। ১০ ইউনিয়ন এর ৪১ জন কর্মী স্বেচ্ছায় এই কাজে এগিয়ে এসেছে, আত্মরক্ষার জন্য চাঁদপুর ৫ এর সংসদ সদস্য মেজর (অবঃ) রফিকুল ইসলাম বীরউত্তম তাদের পিপিই, গ্লাভস, মাস্ক সহ প্রয়োজনীয় অন্যান্য সরঞ্জাম দিয়েছেন।
এছাড়া সকল প্রকার সহযোগিতার আশ্বাস দিয়েছে চাঁদপুর জেলা ছাত্রলীগ এর সংগ্রামী সভাপতি মোঃ জহির উদ্দিন, বিপ্লবী সাধারন সম্পাদক মোঃ সাদ্দাম হোসেন খান, শাহরাস্তি উপজেলা নির্বাহী অফিসার শিরিন আক্তার, অফিসার ইনচার্জ শাহরাস্তি মডেল থানা জনাব মোঃ শাহআলম এলএলবি।
এ বিষয়ে সাজিদ মাহমুদ সাদ্দাম বলেন, করোনা আক্রান্ত কোন রোগী মারা গেলে তাদের জানাজা-দাফনের প্রয়োজন হলে আমাদের মোবাইল (০১৩১৮-৮০০৪৫১) নম্বরে ফোন করলে আমরা সেখানে পৌঁছে যাবো। জানাজা ও দাফন কার্যক্রম ছাড়াও যদি কাফনের কাপড় প্রয়োজন হয় আমরা তারও ব্যবস্থা করবো।
চাঁদপুর জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি জহির উদ্দিন বলেন বলেন, ‘হট নাম্বারে ফোন করলেই আমাদের কর্মীরা পৌঁছে যাবে করোনায় মৃতদেহ দাফন করতে। খাটিয়া, ইমামসহ প্রয়োজনীয় সকল সামগ্রী প্রস্তুত রয়েছে। একটা মানুষ মুত্যুর পর যেন তাকে যথাযথ সম্মান এবং ধর্মীয় বিধিবিধান অনুযায়ী দাফন করতে পারি সে লক্ষ্যে আমাদের কর্মীরা প্রশিক্ষণও গ্রহণ করেছেন।’
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শিরীন আক্তার বলেন, ‘এই বিপন্ন মুহূর্তে এমন মানবিক উদ্যোগ প্রশংসনীয়। তাদের দেশ ও দশের প্রতি ভালোবাসা, সত্যি অনুস্মরণীয়।