মঙ্গলবার ১৫ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ১লা আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

Ad

সর্বশেষঃ

মদনে গোবিন্দশ্রী বারঘড়িয়া বাল্যবিবাহ…

আপডেটঃ ৫:৩২ অপরাহ্ণ | জানুয়ারি ০৫, ২০২১

হাবিবুর রহমান, মদন, নেত্রকোণা-: নেত্রকোণা জেলা মদন উপজেলা ৪নং গোবিন্দশ্রী ইউনিয়নের গোবিন্দশ্রী গ্রামের (বারঘড়িয়া) পূর্বহাটির সাইদুল তালুকদারের মেয়ে ৮ম শ্রেণি পড়–য়া ছাত্রী মোছাঃ বন্যা আক্তার একই গ্রামের পশ্চিমপাড়া বাসিন্দা আক্কেপ আলীর ছেলে মোঃ ছোটন মিয়ার সাথে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয় বলে এক লিখিত অভিযোগ পাওয়া যায়। সরজমিনে গিয়ে দেখা যায়, এলাকাবাসী জানায় বিবাহ হয়েছে ৬মাস পূর্বে এ বিষয়ে মোছাঃ বন্যা আক্তারের সাথে কথা বললে বিবাহের কথা অস্বীকার করে এবং গণমাধ্যম কর্মীদের এড়িয়ে যায়। বন্যা আক্তারের নিকট তার জন্মসনদ দেখতে চাইলে সে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনীর সনদপত্র দেখায়। সনদপত্রে বন্যা আক্তারের জন্ম তারিখ ২০/১২/২০০৫ দেখা যায়। এতে করে বাল্যবিবাহ বন্ধ করা সম্ভব হবে কি?

এ বিষয়ে মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা মাছুমা মমতাজ এর সাথে ৪ই জানুযারি ২০২১ সোমবার তার অফিসে গেলে তিনি এ প্রতিনিধিকে বলেন, বাল্যবিবাহ হয়েছে সত্য। তবে লিখিতভাবে বিবাহের কোন প্রমাণ পাওয়া যায়নি। বাল্যবিবাহ বন্ধ করার জন্য আমরা উঠান বৈঠকের আয়োজন করেছি।

বাল্যবিবাহ বিষয়ে জানতে চাইলে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বুলবুল আহম্মেদ এ প্রতিনিধিকে জানান, আমি মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা, মদন কে তদন্ত করার জন্য দায়িত্ব দিয়েছি। তদন্ত প্রতিবেদন আমার নিকট আসলে আমি কার্যকরী ব্যবস্থা নিব।