শনিবার ২৩শে জানুয়ারি, ২০২১ ইং ৯ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

Ad

সর্বশেষঃ

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জরুরী হস্তক্ষেপ কামনা : জনমনে প্রশ্ন ?কোন অপশক্তির ইশারায় উত্তরায় ”মুজিব বর্ষে, বিজয় উৎসব’র অনুষ্টান বন্ধ হলো ?

আপডেটঃ ৩:১৮ অপরাহ্ণ | জানুয়ারি ১০, ২০২১

স্টাফ রিপোর্টার : রাজধানীর উত্তরায় বঙ্গবন্ধু কালচারাল ফাউন্ডেশন এর উদ্যোগে আজ শনিবার বিকেলে ”মুজিববর্ষে- বিজয় উৎসব-২০২০’র অনুষ্ঠানটি কোন ক্ষমতাধর ব্যক্তি  এবং কোন অপশক্তির ইশারায় ঝাঁজজমকপূর্ন অনুষ্টানটি শেষ পর্যন্ত বন্ধ করা হলো ? বাঙ্গালী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশত বার্ষিকী ”মুজিব বর্ষকে ঘিরে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনার নির্দেশক্রমে পুরোদেশ ব্যাপী এ অনুষ্টান মালা  পালন করা হচেছ।এরই ধারাবাহিকতায় শনিবার রাজধানীর উত্তরায় এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে বঙ্গবন্ধু কালচারাল ফাউন্ডেশন ।উত্তরার সচেতন নাগরিক, সাধারণ মানুষ ও জনমনে প্রশ্ন ?  কোন শক্তির বলে এ ”মুজিব বর্ষে, বিজয় উৎসব’র অনুষ্টান বন্ধ হয়ে গেল। কারা এর সাথে জড়িত,কারা চক্রান্ত করে এটি বন্ধ করেছে। এটা কি প্রশাসনিক শক্তি নাকি কোন রাজনৈতিক অপশক্তি। সেটি জনগন জানতে চায় ? কেনই বা এই ব্যতিক্রধর্মী  এবং একটি মহৎ অনুষ্ঠানটি শেষ পর্যন্ত হলো না, এর পেছনে কাদের ইন্ধন রয়েছে।

ঢাকা-১৮ আসনের সর্বস্তরের মানুষ ও সমগ্র দেশবাসি আজ জানতে চায় ? জানা গেছে, শনিবার বিকেল ৩টায় রাজধানীর উত্তরা ৭ নম্বর সেক্টর রবীন্দ্র স্বরনী রোডে ”বঙ্গবন্ধু মুক্ত মঞ্জে” ‘বঙ্গবন্ধু কালচারাল ফাউন্ডেশন” নামে একটি সুনামধন্য সংগঠন মুজিববর্ষে বিজয় উৎসব-২০২০ এর আয়োজন করেন।উক্ত অনুষ্টানে ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক  ও ঢাকা-১৮ আসনের নির্বাচিত সংসদ সদস্য আলহাজ মো: হাবিব হাসান প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকার কথা ছিল।অনুষ্ঠানে বঙ্গবন্ধু কালচারাল ফাউন্ডেশন এর সভাপতি আলহাজ মোহাম্মদ শাহ আলম বিজয় উৎসবের অনুষ্টানে সভাপতিত্ব করতেন।আয়োজক কমিটি সুত্রে জানা গেছে, আনুষ্ঠানটি ঘিরে যে সব কর্মসূচি ছিল তার মধ্যে উল্লেখ যোগ্য হলো-  বিকেল ৩টায় বিজয় উৎসব উদ্ধোধন, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মাননা প্রদান ও আলোচনা সভা।ইতোপূর্বে গত ২৬ ডিসেম্বর ২০২০ শনিবার বিকেল ৩টায় প্রথম দফা এ অনুষ্ঠান হওয়ার কথা ছিল।

সেটি ও পরবতর্িতে স্থগিত করে দ্বিতীয় দফায় গত ৯ জানুয়ারি,২০২১ শনিবার বিকেল ৩টায় হবার কথা ছিল।অনুষ্ঠান যারা অতিথির ছিলেন তার মধ্যে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকার কথা ছিল ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামীলীগের ত্রাস ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক এস,এম মাহবুব আলম, মহানগর আওয়ামীলীগের সদস্য ও ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশন ( ডিএনসিসি) ১ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আফসার উদ্দিন খান, উত্তরখান থানা আওয়ামীলীগের সহসভাপতি  ও ডিএনসিসি ৪৪ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর শফিকুল ইসলাম,উত্তরখান থানা আওয়ামীলীগের সহসভাপতি  ও ডিএনসিসি ৪৫ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো: জয়নাল আবেদীন,ঢাকা মহানগর উত্তর যুবলীগের সহসভাপতি ও ডিএনসিসি ৫০ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আলহাজ ডি এম শামিম, ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়া  স্বেচছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক ও ডিএনসিসি ৪৯ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আনিছুর রহমান নাঈম, তুরাগ থানা আওয়ামী লীগের যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক ও ডিএনসিসি ৫২ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আলহাজ ফরিদ আহমেদ, বাংলাদেশ তাঁতীলীগ যুব ও ক্রীড়াবিষয়ক সম্পাদক ও ডিএনসিসি ৪৬ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো: জাইদুল ইসলাম মোল্লা, ডিএনসিসি ৫১ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোহাম্মদ শরীফুর রহমান,ডিএনসিসি ৫৩ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর জাহাঙ্গীর আলম যুবরাজ, ডিএনসিসি ৪৯, ৫০ ও ৫১ নম্বর ওয়ার্ড সংরক্ষিত কাউন্সিলর জাকিয়া সুলতানা।

বঙ্গবন্ধু কালচারাল ফাউন্ডেশনের সাংগঠনিক সম্পাদক  আশরাফ -উল -আলম সবুজ অনুষ্ঠানটি সঞ্জালনার দায়িত্ব ছিলেন।অনুষ্ঠান উৎযাপন কমিটির আহবায়ক ছিলেন বীরমুক্তিযোদ্ধা ইঞ্জিনিয়ার কবিরুজ্জামান ও বঙ্গবন্ধু কালচারাল ফাউন্ডেশনের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক শফিউল হক।অবশেষে বিভিন্ন চাপের মুখে কোন উপায় না পেয়ে অনুষ্ঠান উৎযাপন কমিটির সাধারণ সম্পাদক  এবিষয়ে আন্তুরিক ভাবে দু:খ প্রকাশ করছি- অনিবার্য কারণবশত: আজকের অনুষ্ঠান স্থগিত করা হয়েছে । পরবর্তীতে অনুষ্ঠানের তারিখে জানিয়ে দেয়া হবে মর্মে একটি নোটিশ জারি করে অনুষ্ঠানস্থলে একটি ব্যানার টাঙ্গিয়ে দিয়েছেন।চলমান——