সোমবার ১০ই মে, ২০২১ ইং ২৭শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

Ad

মাদক বিরোধী অভিযানে মাদক বহনকারী ট্রাকচাপায় ১ র‌্যাব সদস্য নিহত…

আপডেটঃ ১২:৪১ পূর্বাহ্ণ | ফেব্রুয়ারি ১৬, ২০২১

মনির হোসেন জীবন:– মাদক বিরোধী অভিযান ট্রাকচাপায় পরিচালনার সময় র‍্যাব সদস্য (কনস্টেবল ইদ্রিস) নিহত হওয়া প্রসংগে। র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব) প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে সবসময় বিভিন্ন ধরণের অপরাধীদের গ্রেফতারের ক্ষেত্রে অত্যন্ত অগ্রণী ভূমিকা পালন করে আসছে। ‌র‌্যাবের সৃষ্টিকাল থেকে এ পর্যন্ত অপহরণকারী, সন্ত্রাসী, এজাহারনামীয় আসামী, ছিনতাইকারী, চাঁদাবাজ, প্রতারকচক্র, ধর্ষণকারী, পণোর্গ্রাফি বিস্তারকারী, চোরাকারবারীদের গ্রেফতার করে সাধারণ জনগণের মনে আস্থা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে। চলো যাই যুদ্ধে, মাদকের বিরুদ্ধে স্লোগানকে সামনে রেখে মাদক নির্মূলে র‍্যাব মাদক বিরোধী অভিযান অব্যাহত রেখেছে। এরই ধারাবাহিকতায় অদ্য ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ইং তারিখ ভোর ৫.৩০ ঘটিকায় র‌্যাব-১, উত্তরা, ঢাকার একটি আভিযানিক দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারে যে, গাজীপুর মহানগরীর টঙ্গী হতে ৩০ কেজি গাঁজা নিয়ে একটি মাদকের চালান গাজীপুরের মাওনা হয়ে ময়মনসিংহ যাচ্ছে। উক্ত সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-১ এর আভিযানিক দল পোড়াবাড়ী ক্যাম্পের সামনে একটি চেকপোস্ট স্থাপন করে। সন্দেহজনক একটি ট্রাককে (ঢাকা মেট্রো ড ১৪-৩৫৮১) চেকপোষ্টে থামার জন্য ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ইং তারিখ সকাল ০৬.৩০ ঘটিকায় সংকেত দেওয়া হয় কিন্তু, ট্রাকটি সংকেত অমান্য করে চলে যায়। এমতাবস্থায়, ঘটনাস্থলে উপস্থিত র‌্যাব সদস্য কনস্টেবল মোঃ ইদ্রিস মোল্লা (২৮) ও সিনিয়র ডিএডি মোঃ গোলাম মোস্তফা মোটর সাইকেল নিয়ে ট্রাকের পিছনে ধাওয়া করে। ট্রাকটি বাগের বাজার পৌছে চলন্ত অবস্থায় মোটর সাইকেলের সামনে এক বস্তা গাঁজা রাস্তার উপরে ফেলে ধাওয়ারত র‌্যাব সদস্যদের হত্যার চেষ্টা করে। মোটর সাইকেলের দ্বিতীয় আসনধারী পিছনের ডিএডি মোঃ গোলাম মোস্তফা গাঁজা রাস্তা হতে সংগ্রহ করে উক্ত স্থানে অবস্থান করতে থাকে। ডিএডি মোঃ গোলাম মোস্তফাকে রেখে মোটর সাইকেল চালক কনস্টেবল মোঃ ইদ্রিস মোল্লা (২৮) একাই ট্রাকের পিছনে অনুসরন করে এবং তার পিছনে র‌্যাবের একটি মাইক্রোবাস ট্রাকের পিছনে অনুসরন করতে থাকে। মোটর সাইকেল নিয়ে কনস্টেবল মোঃ ইদ্রিস মোল্লা (২৮) গাজীপুর পার হয়ে ভালুকার দিকে কোকাকোলা ফ্যাক্টরীর বিপরীতে ৫/৬ কিঃ মিঃ এসে ট্রাকটির গতিরোধ করে। মাদক বহনকারী ট্রাক চালক কনস্টেবল মোঃ ইদ্রিস মোল্লা (২৮)’কে হত্যার উদ্দেশ্যে ট্রাক চাপা দিয়ে দ্রুত ঘটনাস্থল ত্যাগ করে। ঘটনাস্থলেই কনস্টেবল মোঃ ইদ্রিস মোল্লা (২৮) মৃত্যুবরণ করেন (ইন্নালিল্লাহে ওয়া ইন্না লিহাহে রাজিউন) এবং মটর সাইকেলটি দুমড়ে মুচড়ে যায়। ঘাতক ট্রাকটি সিডষ্টোর, ভালুকা, ময়মনসিংহ এলাকা হতে আটক করা হয় এবং ট্রাকটির ড্রাইভার ও হেলপার পালিয়ে যায়। এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে ময়মনসিংহ জেলার ভালুকা মডেল থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে। মাদক বহনকারী ট্রাকটির ড্রাইভার ও হেলপারকে আটকের অভিযান চলমান রয়েছে। কনস্টেবল মোঃ ইদ্রিস মোল্লা (২৮) ২৬ জুন ১৯৯২ ইং তারিখে মানিকগঞ্জ জেলার ঘিওর থানাধীন কেল্লাই গ্রামে জন্ম গ্রহণ করে। গত ২২ ডিসেম্বর ২০১১ ইং তারিখে বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনীতে যোগদান করে (চাকুরী কাল ০৯ বছর ০১ মাস ২২ দিন )। পরবর্তীতে ৩০ মে ২০১৯ ইং তারিখ বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনী হতে প্রেষণে র‍্যাবে যোগদান করে। ব্যক্তিগত জীবনে সে বিবাহিত। র‍্যাবের পক্ষ হতে শহীদ মোঃ ইদ্রিস মোল্লার স্ত্রীকে ১,০০,০০০/- (এক লক্ষ) টাকা এবং পিতাকে ৫০,০০০/- (পঞ্চাশ) হাজার টাকা প্রদান করা হচ্ছে। এ প্রেক্ষিতে, মহাপরিচালক, র‌্যাব ফোর্সেস এবং পরিচালক, র‌্যাব-১ গভীরশোক প্রকাশ করেছেন ও শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন। ইতিপূর্বেও বিভিন্ন অভিযান চলাকালীন র‌্যাবের ২৭ জন সদস্য শহীদ হয়েছেন এবং অভিযান চলাকালীন সময়ে ২২ জন সদস্য গুলিবিদ্ধ হন। এছাড়া অভিযান চলাকালীন সময়ে গুরুত্বর আহত হয়েছেন পাঁচ শতাধিক র‌্যাব সদস্য। এভাবেই নিজের জীবনের ঝুঁকি নিয়ে জনজীবনে শান্তি প্রতিষ্ঠায় প্রতিনিয়ত কাজ করে যাচ্ছে র‌্যাব।