মঙ্গলবার ১১ই মে, ২০২১ ইং ২৮শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

Ad

সর্বশেষঃ

গাজীপুরে অসহায় মানুষের সহায়ক বন্ধু কামরুল আহসান সরকার রাসেল

আপডেটঃ ২:৩১ পূর্বাহ্ণ | মে ০৫, ২০২১


শেখ রাজীব হাসান, গাজীপুরঃ বৈশ্বিক মহামারি করোনা ভাইরাসের কারণে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের ন্যায় বাংলাদেশে সৃষ্ট লকডাউনে সারাদেশের সাধারণ মানুষ যখন ভয়াবহ অভাবনীয় অবস্থায় দিনযাপন করছিলো ঠিক সে সময় গাজীপুরের অসহায় মানুষের আস্থার শেষ ঠিকানা, যাকে গাজীপুরের যুব সমাজের আইডল বলা হয়ে থাকে, মহানগর যুবলীগের আহবায়ক পরিশ্রমী নেতা আলহাজ্ব মোঃ কামরুল আহসান সরকার রাসেল জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করার লক্ষ্যে বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের,চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ এবং সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব মাইনুল হোসেন খান নিখিল এর নির্দেশে নিজ উদ্যোগে গরীব, অসহায়, হতদরিদ্র, শিক্ষক, ছাত্র, ছাত্রীসহ মধ্য বিত্তদের মাঝে অর্থ সহায়তা ও খাদ্য সামগ্রী বিতরণের মাধ্যমে গাজীপুরের মানুষের সাথে গভীর বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক স্থাপন করেছেন।
সরোজমিনে গিয়ে জানা যায়, করোনা মহামারি চলা কালীন সময় ছাড়াও যুবলীগের পরিশ্রমী এই নেতা তার কর্মদক্ষতা ও সাধারণ মানুষের সাথে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক স্থাপনের মাধ্যমে দেশব্যাপী ব্যাপক সুনাম অর্জন করেছেন। প্রতিদিনই মহামারি করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে বিপদগ্রস্ত অসহায় কর্মহীন হয়ে পড়া শতশত মানুষ সাহায্যের জন্য ভীড় জমাচ্ছে সরকার বাড়িতে। করোনা কালীন সময়ে পরিশ্রমী এই নেতার মাধ্যমে ত্রাণ সহায়তা পাচ্ছে গাজীপুরসহ দেশের বিভিন্ন জেলার লক্ষ লক্ষ পরিবার। এছাড়া বিভিন্ন স্কুল, কলেজ, মসজিদ, মাদরাসা ও এতিমখানাসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে অনুদান প্রদান অব্যহত রেখেছেন। দূর দুরান্ত থেকে সহায়তার জন্য আসা একাধীক ব্যাক্তি বলেন, শুনেছিলাম রাসেল নেতার বাড়ি থেকে কেউ খালি হাতে ফিরে যায় নাই। আর এখন নিজে সাহায্যের জন্য এসে তার প্রমান পেলাম। বর্তমান সময়ে রাসেল সরকারের মতো এতোটা ভালো মনের মানুষ পাওয়া সত্যিই ভাগ্যের বেপার।
কামরুল আহসান সরকার রাসেল বলেন, মানবতার সেবক আমাদের প্রাণপ্রিয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার স্বপ্ন পুরণে ও ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের,চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ এবং সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব মাইনুল হোসেন খান নিখিল এর নির্দেশে প্রতিদিনের মতোই মহামারি করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে বিপদগ্রস্ত অসহায় কর্মহীন হয়ে পড়া মানুষের মাঝে নগদ অর্থ ও খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করছি। করোনা ভাইরাসের দ্বিতীয় ধাপে মহামারী প্রদুর্ভাবে বিপর্যস্ত হতদরিদ্র শত শত পরিবারকে সহায়তা ও পুরো রমজান মাস জুড়ে নগরীর এক থেকে ৫৭ টি ওয়ার্ডে মাহে রমজানের ইফতার সামগ্রী ইফতার বিতরণ কর্মসূচি সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে চলমান রেখেছি। এছাড়া করোনা প্রতিরোধে প্রতিদিন সাধারণ মাঝে জনসচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে প্রতিদিন বিপুল পরিমাণ মাক্স ও হ্যান্ড স্যানিটাজার বিতরণ চলমান রেখেছি। তবে আমাদের আসপাশে যারা বৃত্তবান রয়েছে সকলেরই উচিৎ অসহায় মানুষের পাশে থাকা। সবাই আমার জন্য দোয়া করবেন আমি যেন সুস্থ থেকে এভাবেই সাধারণ মানুষের উপকারে আসতে পারি। সাধরণ মানুষের ভালোবাসা ব্যাতীত আমার চাওয়ার আর কিছুই নেই। সকলের কাছীকটাই অনুরোধ করোনা মহামারি থেকে দেশ ও নিজেকে বাচাতে সরকারের দেওয়া সকল নির্দেশনা মেনে চলুন