বৃহস্পতিবার ২৫শে এপ্রিল, ২০১৯ ইং ১২ই বৈশাখ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

Ad

সর্বশেষঃ

১৭ জনকে ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড গাজীপুরে রমজান মাসেও আবাসিক হোটেলে অবৈধ দেহ ব্যবসা ॥ হাতেনাতে ১৯ তরুণ-তরুণী আটক

আপডেটঃ ৩:১২ পূর্বাহ্ণ | মে ২৩, ২০১৮

জামিলা আক্তার পারুল : গাজীপুর টঙ্গী থেকে ফিরে :রাজধানীর অদূরে গাজীপুর ও টঙ্গীর বিভিন্ন আবাসিক হোটেলে রমজান মাসেও চলছে অসামাজিক কার্যকলাপ তথা (অবৈধ দেহ) ব্যবসা। আটক ১৯ জনের মধ্যে ১৩ জন তরুণ এবং ছয়জন তরুণী রয়েছেন। তাদের মধ্যে ১৭ জনকে ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড দেয়া হয়েছে
সোমবার গাজীপুরের ৫টি আবাসিক হোটেলে অভিযান চালিয়ে বিপুল পরিমাণ মাদকদ্রব্যসহ ১৯ তরুণ-তরুণীকে হাতেনাতে আটক করেছে পুলিশ। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে তাদের বিভিন্ন মেয়াদে কারাদন্ড দেয়া হয়।
গাজীপুরের জেলা প্রশাসক ড. দেওয়ান মুহাম্মদ হুমায়ূন কবীরের নির্দেশে এ অভিযান চালান গাজীপুরের এনডিসি ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট বিএম কুদরত-এ-খুদা, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শাহরীন মাধবী, রাসেল মিয়া এবং জুবের আলম।
স্থানীয় সূত্র জানায়, সোমবার দুপুরে মহানগরীর বোর্ড বাজারের ময়নামতি আবাসিক, টঙ্গীর কাজী মার্কেটের মুন স্টার, হাজী জলিল মার্কেটের অনামিকা, বন্ধু এবং সানমুনসহ ৫টি আবাসিক হোটেলে অভিযান চালানো হয়। এ সময় ১৯ তরুণ-তরুণীকে আটক করা হয়। পরে তাদের কারাদন্ড দেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।এনডিসি কুদরত-এ-খুদা বলেন, এসব হোটেলের বিরুদ্ধে দীর্ঘদিন ধরে অবৈধ যৌন ব্যবসার অভিযোগ রয়েছে। অভিযানে আটক ১৯ জনের মধ্যে ১৩ জন তরুণ এবং ছয়জন তরুণী রয়েছেন।
তাদের মধ্যে ১৭ জনকে ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড দেয়া হয়েছে। পাশাপাশি অন্য দুইজনকে গাঁজা সেবন ও বহনের দায়ে ছয় মাস করে কারাদন্ড দেয়া হয়েছে।
উল্লেখ্য, গাজীপুর নগরের চান্দনা চৌরাস্তা, তেলিপাড়া, কোনাবাড়ি, টঙ্গী, হোতাপাড়া, মাওনা চৌরাস্তা, এমনকি ভাওয়ালের বনে গড়ে প্রায় অর্ধশত আবাসিক হোটেলে চলছে জমজমাট দেহ ব্যবসা। যৌন ব্যবসার পাশাপাশি অনেক স্থানেই লেনদেন হয় মাদকদ্রব্য।